সৌদি আরবে নেইমারের অভিষেক কবে, কখন?

সব জল্পনা-কল্পনার অবসান ঘটিয়ে মধ্যপ্রাচ্যের দেশ সৌদি আরবে পাড়ি জমালেন নেইমার জুনিয়র। ব্রাজিলিয়ান এই তারকা ফুটবলারের নতুন ঠিকানা দেশটির অন্যতম সেরা ক্লাব আল হিলাল। ইতোমধ্যে রিয়াদে গিয়ে ক্লাবটির সঙ্গে চুক্তি স্বাক্ষর থেকে, ফটোসেশনে অংশ নেওয়ার কাজটাও সম্পন্ন করেছেন তিনি। এখন ফুটবলপ্রেমীদের মনে কৌতূহল, আল হিলালের জার্সিতে কবে, কখন মাঠে নামবেন নেইমার?

সৌদি ক্লাব আল হিলালের জার্সিতে খুব শিগগিরই মাঠে নামবেন নেইমার। ধারণা করা হচ্ছে, আগামী ১৯ আগস্ট বাংলাদেশ সময় রাত ১২টায় কিং ফাহাদ স্টেডিয়ামে আল ফেইহার বিপক্ষে মাঠে নামবেন নেইমার। সৌদি প্রো লিগের নতুন মৌসুমে জয় দিয়ে শুরু করেছে আল হিলাল। প্রথম ম্যাচে আবহাকে ৩-১ গোলে হারিয়েছে ব্রাজিলের পোস্টারবয়ের ক্লাবটি। গত আসরে তৃতীয় স্থানে থেকে লিগ শেষ করেছিল তারা।

এর আগে ফরাসি ক্লাব পিএসজি থেকে ৯০ মিলিয়ন ইউরোতে দলবদল সেরেছেন নেইমার। বার্ষিক ১৫০ মিলিয়ন ইউরো বেতনে ২ বছরের চুক্তিতে সৌদি ক্লাবটিতে নাম লিখিয়েছেন ৩১ বছর বয়সী এই ফরোয়ার্ড। সৌদিতে বেতনের বাইরে মোটা অঙ্কের বোনাস থাকছে নেইমারের জন্য। প্রাইভেট জেট, বান্ধবীর সঙ্গে নিজের মতো থাকার অনুমতিসহ আরও বেশ কিছু সুবিধা পাচ্ছেন সময়ের অন্যতম সেরা এই তারকা। ইন্সটাগ্রাম বা টুইটারে ক্লাবের হয়ে পোস্ট করলেও থাকবে বোনাস।

আল-হিলালকে এশিয়ার অন্যতম সেরা হিসেবেই গণ্য করা হয়। এএফসি চ্যাম্পিয়ন্স লিগে এখন পর্যন্ত ৪ বার শিরোপা জিতেছে এই ক্লাবটি। নিজ দেশের লিগ পর্যায়েও ৮ বার শিরোপা জিতেছে আল-হিলাল। তাই সান্তোস, বার্সেলোনা, পিএসজি অধ্যায় শেষে সৌদি আরবের আল-হিলালের নতুন এই যাত্রায় নেইমার নিজেও বেশ উচ্ছ্বসিত। তিনি জানান, নতুন ইতিহাস গড়তেই এই ক্লাবে যোগ দিয়েছেন তিনি।

সৌদি ক্লাবে যোগ দিয়ে নেইমার জানান, ‘ইউরোপে অনেক কিছু অর্জন করেছি, দারুণ কিছু মুহূর্ত উপভোগ করেছি। কিন্তু আমি সব সময়ই একজন বৈশ্বিক খেলোয়াড় হতে চেয়েছি, নতুন সুযোগ ও চ্যালেঞ্জের সামনে নিজেকে পরীক্ষা করতে চেয়েছি। আমি ক্রীড়াজগতে নতুন এক ইতিহাস লেখার জন্য সৌদিতে যাচ্ছি। সৌদি প্রো লিগ কম শক্তিশালী নয়, আর সেখানে অনেক দারুণ ফুটবলাররা খেলছেন।’

নিজের নতুন ক্লাব আল হিলালে যোগ দিয়ে নেইমার জানান, সঠিক সময়ে সঠিক সিদ্ধান্ত নিয়েছেন তিনি। তারকা এই ফুটবলার বলেন, ‘আল হিলাল অনেক বড় ক্লাব। তাদের দারুণ সব সমর্থক রয়েছে। এশিয়ার মধ্যে এটা সেরা ক্লাব। আমি মনে করি সঠিক সময়ে সঠিক সিদ্ধান্ত নিয়ে সঠিক ক্লাবকেই বেছে নিয়েছি। আমি জিততে এবং গোল করতে ভালোবাসি। সৌদি আরবে আল হিলালের হয়েও সেটা অব্যাহত রাখতে চাই।’

এদিকে ক্যারিয়ারের শেষ দিকে রয়েছেন নেইমার জুনিয়র। ব্রাজিলের জার্সিতেও নিজের সেরা সময় পার করে এসেছেন তিনি। তার ওপর মৌসুমের বেশিরভাগ সময় ইনজুরিতে মাঠের বাইরেই থাকতে হয় তার। কিন্তু তাকে যেভাবে বরণ করে নিলো আল হিলাল সেটাই চমক জাগানো। এরই মাঝে ক্লাবের টুইটারে নিজেকে আল-হিলালি বলেও ঘোষণা দিয়ে রেখেছেন নেইমার। এখন শুধু তার মাঠে নামার অপেক্ষা।

Related articles

Comments

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Latest articles